আল্লাহই সর্বময় ক্ষমতার অধিপতি

আল্লাহই সর্বময় ক্ষমতার অধিপতি
 
[মালিক] ﻣَﻠِﻚ অর্থ শাসক, রাজা, নৃপতি, সম্রাট, অধিপতি; এর বহুবচন ﻣُﻠُﻮﻙ [মুলূক]। এবং [আল-মালিক] ﺍﻟْﻤَﻠِﻚ অর্থ মহা অধিপতি আল্লাহ।
[মুল্ক] ﻣُﻠْﻚ অর্থ শাসন, শাসনক্ষমতা, কর্তৃত্ব, রাজত্ব, মালিকানা। [মুল্ক] ﻣُﻠْﻚ আরেকটি অর্থ সম্পত্তি, সম্পদ; এর বহুবচন ﺃَﻣْﻼَﻙ [আমলা-ক]।
সার্বভৌমত্বে, কর্তৃত্বে, রাজত্বে, শাসন ক্ষমতায়, ধন-সম্পদে ইত্যাদি ক্ষেত্রে আল্লাহই হলেন একমাত্র অধিপতি, মালিক ও প্রভু। এতে তার কোন শরীক বা অংশীদার নেই। আল্লাহ বলেন-
ﻓَﺘَﻌَﺎﻟَﻰ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﺍﻟْﻤَﻠِﻚُ ﺍﻟْﺤَﻖُّ
সুতরাং সত্যিকার অধিপতি আল্লাহ সুউচ্চ মহান। ত্ব-হা, ২০/১১৪
ﻓَﺘَﻌَﺎﻟَﻰ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﺍﻟْﻤَﻠِﻚُ ﺍﻟْﺤَﻖُّ ﻻ ﺇِﻟَﻪَ ﺇِﻻ ﻫُﻮَ ﺭَﺏُّ ﺍﻟْﻌَﺮْﺵِ ﺍﻟْﻜَﺮِﻳﻢِ
সুতরাং সত্যিকার অধিপতি আল্লাহ সুউচ্চ মহান, তিনি ছাড়া কোন (সত্য) ইলাহ নেই, তিনিই সম্মানিত আরশের রব। মু’মিনুন, ২৩/১১৬
ﻳُﺴَﺒِّﺢُ ﻟِﻠَّﻪِ ﻣَﺎ ﻓِﻲ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﻣَﺎ ﻓِﻲ ﺍﻷﺭْﺽِ ﺍﻟْﻤَﻠِﻚِ ﺍﻟْﻘُﺪُّﻭﺱِ ﺍﻟْﻌَﺰِﻳﺰِ ﺍﻟْﺤَﻜِﻴﻢِ
যা কিছু আসমানে আছে আর যা কিছু জমিনে আছে, সব কিছুই আল্লাহর পবিত্রতা ও মহিমা ঘোষণা করে, তিনি সর্বময় ক্ষমতার অধিপতি, অতি পবিত্র, পরাক্রমশালী, প্রজ্ঞাময়। আল-জুমু‘য়াহ, ৬২/১
ﻫُﻮَ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻻ ﺇِﻟَﻪَ ﺇِﻻ ﻫُﻮَ ﺍﻟْﻤَﻠِﻚُ ﺍﻟْﻘُﺪُّﻭﺱُ ﺍﻟﺴَّﻼﻡُ ﺍﻟْﻤُﺆْﻣِﻦُ ﺍﻟْﻤُﻬَﻴْﻤِﻦُ ﺍﻟْﻌَﺰِﻳﺰُ ﺍﻟْﺠَﺒَّﺎﺭُ ﺍﻟْﻤُﺘَﻜَﺒِّﺮُ ﺳُﺒْﺤَﺎﻥَ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﻋَﻤَّﺎ ﻳُﺸْﺮِﻛُﻮﻥَ
তিনিই আল্লাহ, যিনি ছাড়া সত্যিকার কোন ইলাহ নেই, তিনিই বাদশাহ, মহাপবিত্র, পরিপূর্ণ শান্তিদাতা, নিরাপত্তাদাতা, রক্ষক, পরাক্রমশালী, প্রতাপশালী, অতীব মহিমান্বিত, তারা যা শরীক করে তা হতে পবিত্র, মহান। আল-হাশর, ৫৯/২৩
ﻗُﻞْ ﺃَﻋُﻮﺫُ ﺑِﺮَﺏِّ ﺍﻟﻨَّﺎﺱِ ﻣَﻠِﻚِ ﺍﻟﻨَّﺎﺱِ ﺇِﻟَﻪِ ﺍﻟﻨَّﺎﺱِ
তুমি বল, ‘আমি আশ্রয় চাই মানুষের প্রতিপালকের, মানুষের অধিপতির, মানুষের ইলাহর কাছে’। আন-নাস, ১১৪/১-৩
রাজত্ব, কর্তৃত্ব, শাসনক্ষমতা আল্লাহর
ﺗَﺒَﺎﺭَﻙَ ﺍﻟَّﺬِﻱ ﺑِﻴَﺪِﻩِ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻭَﻫُﻮَ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
তিনি বরকতময়, সর্বময় কর্তৃত্ব্ ও রাজত্ব্ তাঁর হাতে; তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আল-মুল্ক, ৬৭/১
ﻓَﺴُﺒْﺤَﺎﻥَ ﺍﻟَّﺬِﻱ ﺑِﻴَﺪِﻩِ ﻣَﻠَﻜُﻮﺕُ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻭَﺇِﻟَﻴْﻪِ ﺗُﺮْﺟَﻌُﻮﻥَ
অতএব পবিত্র ও মহান তিনি, যাঁর হাতে রয়েছে সকল কিছুর সর্বময় কর্তৃত্ব এবং তাঁরই দিকে তোমরা প্রত্যাবর্তিত হবে। ইয়া-সীন, ৩৬/৮৩
ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻳُﺆْﺗِﻲ ﻣُﻠْﻜَﻪُ ﻣَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻭَﺍﺳِﻊٌ ﻋَﻠِﻴﻢٌ
আর আল্লাহ যাকে ইচ্ছা তাঁর রাজত্ব দান করেন, আর আল্লাহ প্রাচুর্য্ময়, মহাজ্ঞানী। আল-বাকারাহ, ২/২৪৭
ﻳُﺴَﺒِّﺢُ ﻟِﻠَّﻪِ ﻣَﺎ ﻓِﻲ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﻣَﺎ ﻓِﻲ ﺍﻷﺭْﺽِ ﻟَﻪُ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻭَﻟَﻪُ ﺍﻟْﺤَﻤْﺪُ ﻭَﻫُﻮَ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
যা কিছু আসমানে রয়েছে ও যা কিছু জমিনে রয়েছে সব কিছুই আল্লাহর পবিত্রতা ও মহিমা ঘোষণা করে, রাজত্ব তাঁরই আর প্রশংসাও তাঁরই আর তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আত্-তাগাবুন, ৬৪/১
ﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻣَﺎ ﻓِﻴﻬِﻦَّ ﻭَﻫُﻮَ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আসমান ও জমিন এবং তাদের মাঝে যা কিছু রয়েছে তাতে কর্তৃত্ব আল্লাহরই আর তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আল-মায়িদাহ, ৫/১২০
ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আর আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব আল্লাহরই আর তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আলে-‘ইমরান, ৩/১৮৯
ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻳُﺤْﻴِﻲ ﻭَﻳُﻤِﻴﺖُ ﻭَﻫُﻮَ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আসমান ও জমিনের রাজত্ব তাঁরই, তিনি জীবন দান করেন আর তিনি মৃত্যু ঘটিয়ে থাকেন; আর তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আল-হাদীদ, ৫৭/২
ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻣَﺎ ﺑَﻴْﻨَﻬُﻤَﺎ ﻳﺨْﻠُﻖُ ﻣَﺎ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আর আসমান ও জমিন এবং উভয়ের মাঝে যা কিছু রয়েছে তাতে কর্তৃত্ব আল্লাহরই, তিনি যা ইচ্ছা সৃষ্টি করেন আর তিনি সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আল-মায়িদাহ, ৫/১৭
ﺃَﻟَﻢْ ﺗَﻌْﻠَﻢْ ﺃَﻥَّ ﺍﻟﻠَّﻪَ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻳُﻌَﺬِّﺏُ ﻣَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﻳَﻐْﻔِﺮُ ﻟِﻤَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
তুমি কি জান না যে আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব আল্লাহরই, তিনি যাকে ইচ্ছা শাস্তি দেন আর যাকে ইচ্ছা ক্ষমা করেন, আর আল্লাহ সকল কিছুর উপর ক্ষমতাবান। আল-মায়িদাহ, ৫/৪০
ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻳَﻐْﻔِﺮُ ﻟِﻤَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﻳُﻌَﺬِّﺏُ ﻣَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﻛَﺎﻥَ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﻏَﻔُﻮﺭًﺍ ﺭَﺣِﻴﻤًﺎ
আর আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব আল্লাহরই; তিনি যাকে ইচ্ছা ক্ষমা করেন, আর যাকে ইচ্ছা শাস্তি দেন, আল্লাহ ক্ষমাশীল, পরম দয়ালু। আল-ফাত্হ, ৪৮/১৪
ﻳَﻐْﻔِﺮُ ﻟِﻤَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﻳُﻌَﺬِّﺏُ ﻣَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻣَﺎ ﺑَﻴْﻨَﻬُﻤَﺎ ﻭَﺇِﻟَﻴْﻪِ ﺍﻟْﻤَﺼِﻴﺮُ
তিনি যাকে ইচ্ছা ক্ষমা করেন, আর যাকে ইচ্ছা শাস্তি দেন; আর আসমান ও জমিন আর উভয়ের মাঝে যা কিছু রয়েছে তাতে কর্তৃত্ব আল্লাহরই আর তাঁরই দিকে প্রত্যাবর্তন। আল-মায়িদাহ, ৫/১৮
ﺃَﻟَﻢْ ﺗَﻌْﻠَﻢْ ﺃَﻥَّ ﺍﻟﻠَّﻪَ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻣَﺎ ﻟَﻜُﻢْ ﻣِﻦْ ﺩُﻭﻥِ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﻣِﻦْ ﻭَﻟِﻲٍّ ﻭَﻻ ﻧَﺼِﻴﺮٍ
তুমি কি জান না যে আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব আল্লাহরই আর আল্লাহ ছাড়া তোমাদের কোন অভিভাবক ও সাহায্যকারী নাই। আল-বাকারাহ, ২/১০৭
ﺇِﻥَّ ﺍﻟﻠَّﻪَ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻳُﺤْﻴِﻲ ﻭَﻳُﻤِﻴﺖُ ﻭَﻣَﺎ ﻟَﻜُﻢْ ﻣِﻦْ ﺩُﻭﻥِ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﻣِﻦْ ﻭَﻟِﻲٍّ ﻭَﻻ ﻧَﺼِﻴﺮٍ
নিশ্চয় আসমান ও জমিনের রাজত্ব আল্লাহরই, তিনি জীবন দান করেন আর তিনি মৃত্যু ঘটিয়ে থাকেন; আর আল্লাহ ছাড়া তোমাদের কোন অভিভাবক ও সাহায্যকারী নাই। আত্-তাওবাহ, ৯/১১৬
ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻻ ﺇِﻟَﻪَ ﺇِﻻ ﻫُﻮَ ﻳُﺤْﻴِﻲ ﻭَﻳُﻤِﻴﺖُ ﻓَﺂﻣِﻨُﻮﺍ ﺑِﺎﻟﻠَّﻪِ ﻭَﺭَﺳُﻮﻟِﻪِ ﺍﻟﻨَّﺒِﻲِّ ﺍﻷﻣِّﻲِّ ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻳُﺆْﻣِﻦُ ﺑِﺎﻟﻠَّﻪِ ﻭَﻛَﻠِﻤَﺎﺗِﻪِ ﻭَﺍﺗَّﺒِﻌُﻮﻩُ ﻟَﻌَﻠَّﻜُﻢْ ﺗَﻬْﺘَﺪُﻭﻥَ
আসমান ও জমিনে যাঁর কর্তৃত্ব, তিনি ছাড়া কোন সত্যিকার ইলাই নেই, তিনি জীবন দান করেন আর তিনি মৃত্যু ঘটিয়ে থাকেন; সুতরাং তোমরা ঈমান আন আল্লাহ ও তাঁর প্রেরিত নিরক্ষর নবীর প্রতি, সে নিজে আল্লাহয়, ও তাঁর বানীসমূহে বিশ্বাস রাখে, আর তোমরা তাঁর অনুসরণ কর, আশা করা যায় তোমরা সঠিক পথ পাবে। আল-আ‘রাফ, ৭/১৫৮
ﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻳَﺨْﻠُﻖُ ﻣَﺎ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻳَﻬَﺐُ ﻟِﻤَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﺇِﻧَﺎﺛًﺎ ﻭَﻳَﻬَﺐُ ﻟِﻤَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﺍﻟﺬُّﻛُﻮﺭَ ﺃَﻭْ ﻳُﺰَﻭِّﺟُﻬُﻢْ ﺫُﻛْﺮَﺍﻧًﺎ ﻭَﺇِﻧَﺎﺛًﺎ ﻭَﻳَﺠْﻌَﻞُ ﻣَﻦْ ﻳَﺸَﺎﺀُ ﻋَﻘِﻴﻤًﺎ ﺇِﻧَّﻪُ ﻋَﻠِﻴﻢٌ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আসমান ও জমিনের রাজত্ব আল্লাহরই; তিনি যা ইচ্ছা সৃষ্টি করেন, তিনি যাকে ইচ্ছা কন্যা সন্তান দান করেন আর যাকে ইচ্ছা পুত্র সন্তান দান করেন। কিংবা পুত্র ও কন্যা উভয়ই দান করেন আর যাকে ইচ্ছা বন্ধ্যা রাখেন, নিশ্চয় তিনি মহাজ্ঞানী, সর্বশক্তিমান। আশ্-শূরা, ৪২/৪৯-৫০
ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻟَﻢْ ﻳَﺘَّﺨِﺬْ ﻭَﻟَﺪًﺍ ﻭَﻟَﻢْ ﻳَﻜُﻦْ ﻟَﻪُ ﺷَﺮِﻳﻚٌ ﻓِﻲ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚِ ﻭَﺧَﻠَﻖَ ﻛُﻞَّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻓَﻘَﺪَّﺭَﻩُ ﺗَﻘْﺪِﻳﺮًﺍ
আসমানে ও জমিনে যিনি সর্বময় কর্তৃত্বের অধিপতি, তিনি কোন সন্তান গ্রহণ করেননি এবং সার্বভৌমত্বে তাঁর কোন শরীক নাই, তিনি সকল কিছু সৃষ্টি করেছেন অতঃপর সেগুলোকে যথাযথ পরিমাণে পরিমিত করেছেন। আল-ফুরক্বান, ২৫/২
ﻗُﻞْ ﻟِﻠَّﻪِ ﺍﻟﺸَّﻔَﺎﻋَﺔُ ﺟَﻤِﻴﻌًﺎ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﺛُﻢَّ ﺇِﻟَﻴْﻪِ ﺗُﺮْﺟَﻌُﻮﻥَ
তুমি বল, সকল সুপারিশ আল্লাহর মালিকানাধীন, আসমান ও জমিনের রাজত্ব তাঁরই, অতঃপর তোমরা তাঁরই নিকট প্রত্যাবর্তিত হবে। আয-যুমার, ৩৯/৪৪
ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﺇِﻟَﻰ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﺍﻟْﻤَﺼِﻴﺮُ
আর আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব আল্লাহরই আর প্রত্যাবর্তন আল্লাহর দিকেই। আন-নূর, ২৪/৪২
ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﺇِﻟَﻰ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﺗُﺮْﺟَﻊُ ﺍﻷﻣُﻮﺭُ
আসমান ও জমিনের কর্তৃত্ব তাঁরই, আর আল্লাহরই দিকে সকল বিষয় প্রত্যাবর্তিত হবে। আল-হাদীদ, ৫৭/৫
ﻭَﺗَﺒَﺎﺭَﻙَ ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻣَﺎ ﺑَﻴْﻨَﻬُﻤَﺎ ﻭَﻋِﻨْﺪَﻩُ ﻋِﻠْﻢُ ﺍﻟﺴَّﺎﻋَﺔِ ﻭَﺇِﻟَﻴْﻪِ ﺗُﺮْﺟَﻌُﻮﻥَ
আর বরকতময় তিনি, যাঁর কর্তৃত্ব আসমান ও জমিনে এবং উভয়ের মাঝে যা কিছু রয়েছে তাতে, আর তাঁর নিকটে কিয়ামতের জ্ঞান আছে আর তোমরা তাঁরই দিকে প্রত্যাবর্তিত হবে। আয্-যুখরুফ, ৪৩/৮৫
ﻭَﻟِﻠَّﻪِ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﻳَﻮْﻡَ ﺗَﻘُﻮﻡُ ﺍﻟﺴَّﺎﻋَﺔُ ﻳَﻮْﻣَﺌِﺬٍ ﻳَﺨْﺴَﺮُ ﺍﻟْﻤُﺒْﻄِﻠُﻮﻥَ
আর আসমান ও জমিনের রাজত্ব আল্লাহরই এবং যেদিন কিয়ামত সংঘটিত হবে সেদিন বাতিলপন্থীরা ক্ষতিগ্রস্ত হবে। আল-জাসিয়া, ৪৫/২৭
ﺍﻟَّﺬِﻱ ﻟَﻪُ ﻣُﻠْﻚُ ﺍﻟﺴَّﻤَﺎﻭَﺍﺕِ ﻭَﺍﻷﺭْﺽِ ﻭَﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﺷَﻬِﻴﺪٌ
যার কর্তৃত্ব আসমানে ও জমিনে আর সেই আল্লাহই সব কিছুর উপর প্রত্যক্ষদর্শী। আল-বুরূজ, ৮৫/৯
আল্লাহই আমাদের রব ও পালনকর্তা
ﺫَﻟِﻜُﻢُ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﺭَﺑُّﻜُﻢْ ﻟَﻪُ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻻ ﺇِﻟَﻪَ ﺇِﻻ ﻫُﻮَ ﻓَﺄَﻧَّﻰ ﺗُﺼْﺮَﻓُﻮﻥَ
সেই আল্লাহই তোমাদের রব, সর্বময় কর্তৃত্ব ও রাজত্ব তাঁরই, তিনি ছাড়া সত্যিকার কোন ইলাই নেই, তবুও তোমাদেরকে কোথায় ফিরানো হচ্ছে? আয-যুমার, ৩৯/৬
ﺫَﻟِﻜُﻢُ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﺭَﺑُّﻜُﻢْ ﻟَﻪُ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻭَﺍﻟَّﺬِﻳﻦَ ﺗَﺪْﻋُﻮﻥَ ﻣِﻦْ ﺩُﻭﻧِﻪِ ﻣَﺎ ﻳَﻤْﻠِﻜُﻮﻥَ ﻣِﻦْ ﻗِﻄْﻤِﻴﺮٍ
সেই আল্লাহ তোমাদের রব, সর্বময় কর্তৃত্ব তাঁরই, আর তাকে বাদ দিয়ে তোমরা যাদেরকে ডাক, তারা খেজুরের আঁটির আবরণেরও মালিক নয়। ফাত্বির, ৩৫/১৩
বিচার দিনের বাদশাহী একমাত্র আল্লাহরই
ﻗَﻮْﻟُﻪُ ﺍﻟْﺤَﻖُّ ﻭَﻟَﻪُ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻳَﻮْﻡَ ﻳُﻨْﻔَﺦُ ﻓِﻲ ﺍﻟﺼُّﻮﺭِ ﻋَﺎﻟِﻢُ ﺍﻟْﻐَﻴْﺐِ ﻭَﺍﻟﺸَّﻬَﺎﺩَﺓِ ﻭَﻫُﻮَ ﺍﻟْﺤَﻜِﻴﻢُ ﺍﻟْﺨَﺒِﻴﺮُ
তাঁর কথাই প্রকৃত সত্য, আর সেই (বিচার) দিনের কর্তৃত্ব থাকবে কেবলমাত্র তাঁরই, যেদিন শিঙ্গাঁয় ফুঁক দেয়া হবে, তিনি অদৃশ্যের ও দৃশ্যের সম্পর্কে অবহিত, আর তিনি প্রজ্ঞাময়, সর্বজ্ঞ। আল-আন‘আম, ৬/৭৩
ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻳَﻮْﻣَﺌِﺬٍ ﺍﻟْﺤَﻖُّ ﻟِﻠﺮَّﺣْﻤَﻦِ ﻭَﻛَﺎﻥَ ﻳَﻮْﻣًﺎ ﻋَﻠَﻰ ﺍﻟْﻜَﺎﻓِﺮِﻳﻦَ ﻋَﺴِﻴﺮًﺍ
সেই দিনের প্রকৃত কর্তৃত্ব হবে পরম করুণাময়ের আর সেই দিন কাফিরদের জন্য বড়ই কঠিন হবে। আল-ফুরক্বান, ২৫/২৬
ﺍﻟْﻤُﻠْﻚُ ﻳَﻮْﻣَﺌِﺬٍ ﻟِﻠَّﻪِ ﻳَﺤْﻜُﻢُ ﺑَﻴْﻨَﻬُﻢْ ﻓَﺎﻟَّﺬِﻳﻦَ ﺁﻣَﻨُﻮﺍ ﻭَﻋَﻤِﻠُﻮﺍ ﺍﻟﺼَّﺎﻟِﺤَﺎﺕِ ﻓِﻲ ﺟَﻨَّﺎﺕِ ﺍﻟﻨَّﻌِﻴﻢِ ﻭَﺍﻟَّﺬِﻳﻦَ ﻛَﻔَﺮُﻭﺍ ﻭَﻛَﺬَّﺑُﻮﺍ ﺑِﺂﻳَﺎﺗِﻨَﺎ ﻓَﺄُﻭﻟَﺌِﻚَ ﻟَﻬُﻢْ ﻋَﺬَﺍﺏٌ ﻣُﻬِﻴﻦٌ
সেই (বিচারের) দিন কর্তৃত্ব ও আধিপত্য হবে আল্লাহরই, তিনিই তাদের মধ্যে বিচার ফায়সালা করে দিবেন; অতএব যারা ঈমান এনেছে এবং নেক আমল করেছে, তারা থাকবে নে‘আমতপূর্ণ জান্নাতে। আর যারা অবিশ্বাস করে ও আমার আয়াতসমূহকে মিথ্যা প্রতিপন্ন করেছে, তাদের জন্যে রয়েছে লাঞ্ছনাদায়ক শাস্তি। আল-হাজ্জ, ২২/৫৬-৫৭
এই বিষয় দু‘আ
ﺍﻟﻠَّﻬُﻢَّ ﻣَﺎﻟِﻚَ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚِ ﺗُﺆْﺗِﻲ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚَ ﻣَﻦْ ﺗَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺗَﻨْﺰِﻉُ ﺍﻟْﻤُﻠْﻚَ ﻣِﻤَّﻦْ ﺗَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺗُﻌِﺰُّ ﻣَﻦْ ﺗَﺸَﺎﺀُ ﻭَﺗُﺬِﻝُّ ﻣَﻦْ ﺗَﺸَﺎﺀُ ﺑِﻴَﺪِﻙَ ﺍﻟْﺨَﻴْﺮُ ﺇِﻧَّﻚَ ﻋَﻠَﻰ ﻛُﻞِّ ﺷَﻲْﺀٍ ﻗَﺪِﻳﺮٌ
আল্লা-হুম্মা মা-লিকাল্ মুল্কি তু-তিল্ মুল্কা মান্ তাশা—-য়ু ওয়া তান্ যি‘য়ুল্ মুল্কা মিম্ মান্ তাশা—-য়ু ওয়া তু‘ইজ্জু মান্ তাশা—-য়ু ওয়া তুযিল্লু মান তাশা—-য়ূ বিইয়াদিকাল্ খাই—র্, ইন্নাকা আলা কুল্লি শাইয়িন্ ক্কাদি—র্
হে আল্লাহ! আপনি রাজত্বের মালিক, আপনি যাকে ইচ্ছা রাজত্ব দান করেন এবং যার কাছ থেকে চান রাজত্ব কেড়ে নেন এবং আপনি যাকে চান সম্মান দান করেন, আর যাকে চান অপমানিত করেন, আপনার হাতেই রয়েছে কল্যাণ; নিশ্চয়ই আপনি সবকিছুর উপর ক্ষমতাবান। আলে‘ইমরান, ৩/২৬

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s